আপত্তিকর অবস্থায় ফেলে ব্ল্যাকমেইল করতেন রোমানা স্বর্ণা!

আপত্তিকর অবস্থায় ফেলে ব্ল্যাকমেইল করতেন রোমানা স্বর্ণা!
আপত্তিকর অবস্থায় ফেলে ব্ল্যাকমেইল করতেন রোমানা স্বর্ণা!

চাঁদপুর সময় রিপোট-সাবেক স্বামীর মামলায় গ্রেফতার মডেল ও অভিনেত্রী রোমানা ইসলাম স্বর্ণাকে আদালতে তোলা হয়েছে। শুক্রবার বিকালে তাকে ঢাকা মহানগর মুখ্য হাকিম (সিএমএম) আদালতে হাজিরা করা হয়। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য স্বর্ণাকে পাঁচদিনের রিমান্ড আবেদন করা হবে বলে মোহাম্মদ থানা সূত্র জানিয়েছে।

এর আগে, নিত্য নতুন প্রতারণার মাধ্যমে সাবেক স্বামীর কাছ থেকে দেড় কোটি টাকা আত্মসাৎ করার অভিযোগে বৃহস্পতিবার রাজধানীর লালমাটিয়া স্বর্ণাকে গ্রেফতার করে পুলিশ। গবিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) তেজগাঁও বিভাগের মোহাম্মদপুর জোনের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (এডিসি) মৃত্যুঞ্জয় দে সজল।
রুমানার সাবেক স্বামী সৌদি প্রবাসী কামরুল হাসান জুয়েল দাবি করেছেন, ‌‘আমার খালাতো ভাইয়ের মাধ্যমকে তার সঙ্গে পরিচয় হয়। পরিচয় হওয়ার এক পর্যায়ে সে ফেসবুকে আমাকে অ্যাড করে। সে অসহায়ত্ব প্রকাশ করে বলে আমার একটা ছেলে আছে, লেখাপড়া করাতে পারি না। মিডিয়াতে কাজ হয় না। এক কাজ করো আমাকে তুমি একটা উবার কিনে দাও, যেটা দিয়ে আমি চলতে পারবো। আমি ১৮ লাখ টাকা দিয়ে উবার কিনে দেই। আমার সর্বমোট দুই কোটি টাকার মতো নিয়েছে।’

আপত্তিকর অবস্থায় ফেলে ব্ল্যাকমেইল করতেন রোমানা স্বর্ণা!
আপত্তিকর অবস্থায় ফেলে ব্ল্যাকমেইল করতেন রোমানা স্বর্ণা!

ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের তেজগাঁও জোনের উপ পুলিশ কমিশনার হারুন অর রশিদ গণমাধ্যমকে বলেন, ‘ভুক্তভোগী জুয়েল যখন বিদেশ থেকে আসলো, তখন সে তার এই স্বর্ণার বাড়িতে গেল। সেসময় এই প্রতারকচক্র করলো কি, তাকে আরো প্রতারণা করার জন্য উলঙ্গ করে ছবি তুললো। এরপর তাকে বললো তুমি যদি আরো টাকা না দাও তাহলে এই ছবি ফেসবুক ও ইন্টারনেটে ছেড়ে দিব। সেই ভয়ে ভুক্তভোগী আরো কিছু টাকা দিলেন।’

অর্থাৎ আপত্তিকর অবস্থায় ফেলে ব্ল্যাকমেইল করতেন রোমানার স্বর্ণা এমনটাই পুলিশের ভাষ্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published.