কেন্দ্রীয় নেতাদের গ্রেফতারের প্রতিবাদে চাঁদপুর জেলা যুবদলের বিক্ষোভ মিছিল

স্টাফ রিপোর্টার বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী যুবদল কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি সুলতান সালাউদ্দিন টুকু ও সহ-সভাপতি নূরুল ইসলাম নয়নকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে চাঁদপুর বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে ৪ ডিসেম্বর রোববার বিকেলে চাঁপুর জেলা যুবলীগের আয়োজনে এ মিছিল ও প্রতিবাদ সভার আয়োজন করা হয়।
জেলা বিএনপির সভাপতির বাসভবনের সামনে থেকে বিক্ষোভ মিছিলটি শুরু হয়ে জেলা বিএনপির কার্যালয়ের সামনে এসে শেষ হয়।পরে সেখানে সংক্ষিপ্ত প্রতিবাদ সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. সলিম উল্ল্যাহ সেলিম।
তিনি বলেন, দেশ আজ সর্বক্ষেত্রে সংকটময় মুহূর্তে রয়েছে। অথচ আওয়ামী লীগ সরকার এখনো গণমানুষের মতকে বাঁধা দিচ্ছে। তারা যুবদলের সভাপতি ও সহ-সভাপতি আটক করেছে। যুবদলকে এর প্রতিবাদ হতে হবে কঠিন প্রতিবাদ করতে হবে। আগামী দিনে কঠিন সময় আসছে, আমার বিশ্বাস যুবদল যদি শক্তি প্রদর্শন করে তাহলে আগামী ১০ তারিখের সমাবেশ সোহরাওয়ার্দীতে নয় সমাবেশ হবে পল্টনে।আপনাদের আরো কঠিন ভাবে সংগঠিত হতে হবে।তিনি বলেন, এরশাদের বিরুদ্ধে ছাত্র সমাজ আন্দোলন করেছে। সেসময় পুলিশ গুলি করে অনেককে হত্যা করেছে তাদের মধ্যে চাঁদপুরের রাজুও নিহত হয়েছে। গতকাল তার প্রতি শ্রদ্ধা জানানোর সময় শপতবাক্য পাঠ করানোর সময় করলেজের অধ্যক্ষ অসিত বরন দাস বলেন বিএনপিকে প্রতিহত করবে। আমি বলতে চাই বিএনপিকে প্রতিহত করার তিনি কেউ নন। আমরা বলতে চাই সরকার যদি তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নেয় তাহলে এই ছাত্র সমাজ তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে বাধ্য হবে।চাঁদপুর জেলা যুবদলের সভাপতি (ভারপ্রাপ্ত) মানিকুর রহমান মানিকের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. নূরুল আমিন খান আকাশের পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন, জেলা যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক ফয়সাল গাজী বাহার।এসময় জেলা যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক ফয়সাল আহমেদ বাহার, সহ-সভাপতি সরোয়ার গাজী, মোস্তফা বন্ধুকসি, শাহজাহান কবির খোকা, শামীম জমাদার, যুগ্ন সম্পাদক নজরুল ইসলাম নজু, সালাউদ্দিন বেপারী, পারভেজ আলম রবিন, সহসাংগঠনিক সম্পাদক রাজ্জাক হাওলাদারসহ জেলা, উপজেলা ও পৌর যুবদলের বিভিন্ন পর্যায়ে নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *