আমি ভুল করেছি: চড়কাণ্ডে ক্রিসের কাছে ক্ষমা চাইলেন উইল স্মিথ

সব ছাপিয়ে ৯৪তম অস্কার পুরস্কার অনুষ্ঠানের একটি ঘটনা সামনে চলে আসে। অভিনেতা উইল স্মিথ এদিন চড় মারলেন মঞ্চে উপস্থিত মার্কিন কমেডিয়ান ক্রিস রককে। এরপর নিজের আসনে ফিরে এসে রককে মুদ্রণ–অযোগ্য ভাষায় গালিগালাজও করেন স্মিথ। স্ত্রীর অপমানের প্রতিশোধ নিতে উইল স্মিথের চড় মারা নিয়ে তর্কবিতর্ক চলতে থাকে গতকাল সোমবার সারা দিন। এক দল স্মিথের পক্ষে, অন্য দল যেকোনো ধরনের সহিংসতার বিপক্ষে। রসিকতার উত্তর চড় হলে অনেকেরই টিকে থাকা মুশকিল হবে, এমনটিও বলেছেন কেউ কেউ।
চড় মারা প্রশ্নে তারকারাও দুই ভাগ হয়ে আছেন। প্রতিক্রিয়া জানাচ্ছেন হলিউড, বলিউড, বাংলাদেশের বিনোদন জগতের তারকারাও। প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন বিনোদন জগতের বাইরেরর অনেকে। এর মধ্যে ২৪ ঘণ্টা কাটতে না কাটতেই নিজের ‘ভুল’ বুঝতে পারলেন অস্কারের মঞ্চের ‘সেরা অভিনেতা’ উইল স্মিথ। অস্কারের মঞ্চে ক্রিস রককে চড় মারার জন্য ক্ষমা চাইলেন অভিনেতা উইল স্মিথ। বললেন, সহিংসতাকে তিনি সমর্থন করেন না।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে একটি বিবৃতি প্রকাশ করেছেন স্মিথ। সেখানে প্রকাশ্যে ক্ষমা চাওয়ার কথা বলেন তিনি।

উইল স্মিথ লিখেছেন, ‘ক্রিস, তোমার কাছে প্রকাশ্যে ক্ষমা চাইছি। আমি সীমা লঙ্ঘন করেছি, আমি ভুল করেছি। যা করেছি, তা অন্যায় এবং তার জন্য ক্ষমাপ্রার্থী। আমি অত্যন্ত লজ্জিত। আমার চরিত্রের সঙ্গে এমন কাজ মেলে না।’ স্মিথ আরও লিখেছেন, স্ত্রীকে নিয়ে রসিকতা মেনে নিতে অসুবিধা হয় না তাঁর। কিন্তু তাঁর স্ত্রীর শারীরিক অসুস্থতা নিয়ে রসিকতা কোনোভাবেই মেনে নিতে পারেন না তিনি। সে কারণেই মাথা গরম করে ফেলেছিলেন। কিন্তু নিজের কৃতকর্মের জন্য তিনি লজ্জিত। কোনো রকম সহিসংতাকে তিনি সমর্থন করেন না বলে জানিয়েছেন স্মিথ।

‘কিং রিচার্ড’ ছবির রিচার্ড উইলিয়ামস চরিত্রে অভিনয়ের জন্য স্মিথ পেলেন সেরা অভিনেতার পুরস্কার। যুক্তরাষ্ট্রের টেনিস তারকা দুই বোন ভেনাস ও সেরেনা ইউলিয়ামসের বাবার ভূমিকার অভিনয় করে এ পুরস্কার পান স্মিথ।

আগেও দুবার অস্কারে মনোনয়ন পেয়েছিলেন উইল স্মিথ। এবারে পেলেন পুরস্কার। অস্কার স্মারক হাতে পেয়ে আবেগাপ্লুত উইল স্মিথ বলেন, শিল্প জীবনেরই অনুকরণ। আমি রিচার্ড উইলিয়ামসকে অনুকরণ করেছি। কিন্তু ভালোবাসাই তো মানুষকে দিয়ে নানা পাগলামি করিয়ে নেয়। অবশ্য সেরা অভিনেতার পুরস্কার জেতার পর উইল স্মিথ হিংসাত্মক ঘটনার জন্য একাডেমির কাছে ক্ষমা চেয়ে নেন, তবে মঞ্চে দাঁড়িয়ে ক্রিস রকের কাছে কোনো রকম ক্ষমা চাননি।

এর আগে ক্রিস রক জানিয়েছিলেন, উইল তাঁকে মারলেও তাঁর বিরুদ্ধে কোনো মামলা করবেন না। কোনো রকম আইনি পদক্ষেপ নেবেন না। তবে একাডেমি পুরস্কার কর্তৃপক্ষ অবশ্য বিষয়টি নিয়ে নিজেদের মতো করে তদন্ত শুরু করেছে। উল্লেখ্য, এদিনই সেরা অভিনেতার পুরস্কার জিতেছেন উইল। পুরস্কারের অনুষ্ঠানে পাশে ছিলেন তাঁর স্ত্রী। ২০১৮ সালে নিজের কঠিন অসুখের কথা জানান পেশায় অভিনেত্রী উইল স্মিথের স্ত্রী জাডা। তাঁর সব চুল পড়ে যায়। অস্কারের মঞ্চে জাডার চুল নিয়েই রসিকতা করেছিলেন রক। তখনই অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনাটি ঘটে।

 আমি-ভুল-করেছি-চড়কাণ্ডে-ক্রিসের-কাছে-ক্ষমা-চাইলেন-উইল-স্মিথ

এদিকে গতকালের অনুষ্ঠানের মঞ্চে উপস্থাপক ক্রিস রককে থাপ্পড় মারার ঘটনায় উইল স্মিথের প্রতি আনুষ্ঠানিকভাবে নিন্দা জানিয়েছে অস্কার কর্তৃপক্ষ। অস্কার পুরস্কার প্রদানকারী সংস্থা একাডেমি অব মোশন পিকচার আর্টস অ্যান্ড সায়েন্সেস এ নিন্দা প্রকাশ করেছে বলে বিবিসির প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে। নিন্দা প্রকাশের পাশাপাশি একাডেমি এ ঘটনার পর্যালোচনাও শুরু করেছে বলে বিবৃতিতে বলা হয়েছে। এতে বলা হয়, ‘এ ঘটনায় ক্যালিফোর্নিয়ার আইন অনুযায়ী এবং ব্যক্তির সামাজিক আচরণের মানদণ্ডের ভিত্তিতে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

Leave a Reply

Your email address will not be published.