খেটে খাওয়া শ্রমিকদের মে দিবস- ফারুক হোসেন বেপারী

খেটে খাওয়া শ্রমিকদের মে দিবস- ফারুক হোসেন বেপারী
খেটে খাওয়া শ্রমিকদের মে দিবস- ফারুক হোসেন বেপারী

স্টাফ রিপোর্টার ॥ করোনাভাইরাসের সংক্রমণে বিধ্বস্ত পৃথিবীতে আজ পালিত হচ্ছে মহান মে দিবস। শ্রমজীবী মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠায় ১৩৪ বছর ধরে বিশ্বজুড়ে পালিত হয়ে আসছে দিনটি। প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের সংক্রমণে গোটা দুনিয়া এখন টালমাটাল। বিশ্বের কোটি কোটি শ্রমজীবী মানুষ কাজ হারিয়ে অনাহার-অর্ধাহারে দিন কাটাচ্ছেন। জীবনের ঝুঁকি নিয়েও তাদের ফিরতে হচ্ছে কল-কারাখানায়। ঠিক এমন একটি সময়ে বিশ্ববাসী পালন করতে যাচ্ছে শ্রমিকের অধিকার আদায়ের ঐতিহাসিক দিন ‘মহান মে দিবস’। শ্রমজীবী মানুষের আন্দোলন-সংগ্রামে অনুপ্রেরণার উৎস এই দিবসটি মালিক-শ্রমিক সুসম্পর্ক প্রতিষ্ঠারও দিন। শ্রমিকদের শোষণ-বঞ্চনার অবসান ঘটারও দিন এটি।
বঞ্চিত খেটে খাওয়া শ্রমজীবী মানুষদের অধিকার আদায়ের লক্ষ্যে ১৮৮৬ সালের এদিনে আন্দোলনে নেমেছিলেন শ্রমিকরা। হাজার বছরের বঞ্চনা আর শোষণ থেকে মুক্তি পেতে দিনটিতে বুকের রক্ত ঝরিয়েছিলেন শ্রমিকেরা। শ্রম ঘণ্টা কমিয়ে আনার দাবিতে এদিন শ্রমিকরা যুক্তরাষ্ট্রের সব শিল্পাঞ্চলে ধর্মঘটের ডাক দিয়েছিলেন। সে ডাকে শিকাগো শহরের তিন লক্ষাধিক শ্রমিক কাজ বন্ধ রাখেন। শ্রমিক সমাবেশকে ঘিরে শিকাগো শহরের হে মার্কেট রূপ নেয় লাখো শ্রমিকের বিক্ষোভ সমুদ্রে। এক লাখ ৮৫ হাজার নির্মাণ শ্রমিকের সঙ্গে আরো অসংখ্য বিক্ষুব্ধ শ্রমিক লাল ঝান্ডা হাতে সমবেত হন সেখানে। বিক্ষোভ চলাকালে এক পর্যায়ে পুলিশ শ্রমিকদের ওপর নির্বিচারে গুলি চালালে ১০ শ্রমিক প্রাণ হারান।
সে সব শ্রমিকদের কথা স্মরণ করে মহান মে দিবস উপলক্ষে দেশে বিদেশে কর্মরত সব বাংলাদেশি শ্রমিক-কর্মচারী এবং বিশ্বের সকল শ্রমজীবী খেটে খাওয়া মানুষকে ধন্যবাদ জানালেন বিশ্বের ৪নং শাহমাহমুদপুর ইউনিয়ন যুবলীগের আহবায়ক মো: ফারুক হোসেন বেপারী।
মহান মে দিবসে আমি সেইসব পরিশ্রমী শ্রমিকদের ধন্যবাদ জানাচ্ছি এই বৈশ্বিক মহামারী করোনা ভাইরাসেও যাদের কঠোর পরিশ্রমে বাংলাদেশ এগিয়ে চলছে দুরন্ত গতিতে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *