চাঁদপুরে ত্যাগের মহিমায় উদ্ভাসিত হয়ে ঈদুল আযহা উদযাপিত

আশিক বিন রহিম: সারা দেশের ন্যায় চাঁদপুরেও ত্যাগের মহিমায় উদ্ভাসিত হয়ে মুসলমানদের অন্যতম ধর্মীয় উৎসব পবিত্র ঈদ উল আযহা উদযাপন হচ্ছে। করোনার কারণে গেল দুই বছর বিরতি দিয়ে চাঁদপুরের প্রতিটি ঈদগাহে অনুষ্ঠিত হয়েছে ঈদ উল আযহার জামাত। ফলে ঈদের জামাতে শরিক হতে মুসল্লিদের ছিল দারুণ আগ্রহ। তাছাড়াও আবহাওয়া ভালো থাকায় চাঁদপুর পৌর ঈদগাহ ময়দান সহ প্রতিটি ঈদগায়ে মুসল্লাদের উপস্থিতি ছিলো চোখে পড়ার মত। ভোরের আলো ফোটার পর থেকেই ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা ছুটেন ঈদগাহে। তারা ঈদ উল আযহার দুই রাকাত ওয়াজিব নামাজ আদায় করে মহান স্রষ্টার প্রতি শুকরিয়া জ্ঞাপন করেন। নামাজের আগে দেওয়া বয়ানে কেরাবানীর অন্তর্নিহিত তাৎপর্য এবং বৈশ্বিক মহামারির বিষয় তুলে ধরা হয়।

খুতবা শেষে মহান আল্লাহর দরবারে, মুসলিম উম্মাহ দেশ ও মানুষের মঙ্গল কামনা করে মোনাজাতে অংশ নেন ধর্মপ্রাণ মানুষ। মোনাজাত শেষে কেউ কেউ কোলাকুলি করলেও অনেকে দূর থেকে শুভেচ্ছা বিনিময় করেন। নামায আদায় করতে বড়দের সাথে শিশুরাও এসেছিল। নামাজ শেষে ভালো লাগার কথা স্বীকার করেছে অকপটে।

এদিকে যেকোন অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতি এড়াতে এবয় নির্বিঘ্নে নামাজ আদায়ের জন্য শহরের বড় ঈদগাহ ময়দানগুলোতে ছিলো নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা ব্যবস্থা।

জেলা ইসলামী ফাউন্ডেশন থেকে প্রাপ্ত তথ্যে জানা যায়, চাঁদপুর পৌর ইদগাহ মাঠ, চাঁদপুর পুলিশ লাইনস্ ময়দান, চাঁদপুর আউটার স্টেডিয়ামে সকাল সাড়ে ৭টায় ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়। এছাড়া চাঁদপুর সরকারি কলেজ মাঠে সকাল ৭.৪৫ মিনিটে, বেগম জামে মসজিদে সকাল সকাল সাড়ে ৭টায়, পুরান বাজার মধুসুধন উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে সকাল ৭.৪৫ মিনিটে এবং বাবুরহাট স্কুল ও কলেজ মাঠে সকাল সাড়ে ৭টায় ঈদের নামাজ হয়। আর চাঁদপুর শহরের চিশতিয়া জামে মসজিদ সংলগ্ন হাসান আলী সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে দুটি ইদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়। প্রথম জামাত সকাল সাড়ে ৭টায় এবং দ্বিতীয় জামাত হয় সকাল সাড়ে ৮টায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *