হামলার প্রতিবাদে চাঁদপুরে মেরিন টেকনোলজির শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন

চাঁদপুর প্রতিনিধি চাঁদপুর ইনস্টিটিউট অব মেরিন টেকনোলজির শিক্ষার্থীদের উপর হামলার প্রতিবাদের মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল করেছে শিক্ষার্থীরা। রোববার (২৭ ফেব্রুয়ারি) সকালে চাঁদপুর শহরের গাছতলা এলাকায় ক্যাম্পাসে প্রায় দুইঘন্টা ধরে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ করে শিক্ষার্থীরা।

হামলায় ৭ শিক্ষার্থীসহ ক্যাম্পাসের দারোয়ান আহত হয়। এরা হলেন, শিক্ষার্থী সাইফুল ইসলাম, রুহুল আমিন রনি, কাউসার ইসলাম ও আসলাম শেখ, ফারহান আহমেদ, কায়েস মাহমুদ, জনি ও দারোয়ান কিবরিয়া।

সামিউল ইসলাম, আবদুল্লাহ তানভির ও মো. কায়েসসহ বেশ কয়েকজন শিক্ষার্থী বলেন, ২৫ ফেব্রুয়রি বিকেলে নদীর পাড়ে কিছু শিক্ষার্থী বসে ছিল। এসময় ষোলঘর এলাকার সোহানের নেতৃত্বে হঠাৎ করে কিছু যুবক দেশিয় অস্রদিয়ে হামলা চালায়। ওই সময় আমাদের ৫জন শিক্ষার্থী আহত হয়।শিক্ষার্থীরা আরও বলেন, পরদিন ২৬ ফেব্রুয়ারি দুপুরে অভিভাবকদের সাথে দেখা করে বিষয়টি নিয়ে বসতে চাইলে বহিরাগতরা আমাদের উপর আবারও হামলা করে। এতে আরও দুইজন আহত হয়। এরপর রাতে ক্যাম্পসে ঢুকতে চাইলে দাড়োয়ান কিবরিয়ার উপর হামলা করে ক্যাম্পসে ককটেল বিস্ফোরণ করে। এছাড়া আমাদের শিক্ষার্থীদের রুমে (মেসে) গিয়ে হুমকি ধমকি দিয়ে আসছে। প্রতিনিয়ত রাস্তার পাশ থেকে প্রতিষ্ঠানের ভিতরে ইট পাটকেল ছুড়ে মারছে। এই হামলার বিচার না হওয়া পর্যন্ত আমাদের কর্মসূচি আরো কঠোর হবে।

চাঁদপুর ইনস্টিটিউট অব মেরিন টেকনোলজির অধ্যক্ষ ড. ইঞ্জিনিয়ার মো. শাখাওয়াত আলী বলেন, অনাকাঙ্ক্ষিত একটি পরিস্থিতি ঘটেছে। ঘটনার সময় আমি ছিলাম না, পরে এসে শুনেছি। প্রত্যেক বিষয়ে ন্যায় বিচার আছে। আমি উভয়ের বক্তব্য শুনে পরবর্তীতে ব্যবস্থা গ্রহন করবো। আমি আশাবাদী দ্রুত এই ঘটনার সমাধান হবে।

চাঁদপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আব্দুর রশিদ বলেন, শিক্ষার্থীদের সাথে কোন কারনে ভুল বুজাবুজি হয়েছে। ককটেল বিস্ফোরণ হয়নি, ইট ছুড়েছে। এখানে বড় কিছু হয়নি। পরিস্থিতি এখন স্বাভাবিক রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.