প্রধানমন্ত্রীর পরিকল্পনা অনুযায়ী দেশ এগিয়ে যাচ্ছে: পরিকল্পনা মন্ত্রী

পরিকল্পনামন্ত্রী এম.এ. মান্নান এমপি বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনা অনুসারে আমরা পরিকল্পনা নিয়ে এগুচ্ছি। তার সব চিন্তার কেন্দ্রবিন্দু হচ্ছে বাংলাদেশের সার্বিক ও সব মানুষের উন্নয়ন।শহর, গ্রাম, হাওড়, বিল, খাল, পুকুর ও পাহাড় সব পর্যায়ের, সব এলাকার মানুষ যাতে আমাদের উন্নয়ন ভোগ করতে পারে, সে লক্ষ্যে আমরা কাজ করে যাচ্ছি।

শুক্রবার (৩১ ডিসেম্বর) দুপুরে চাঁদপুরের মতলব উত্তর উপজেলার মোহনপুর পর্যটন লি. রিসোর্টে ঢাকাস্থ উত্তরা সিলেট সমিতি আয়োজিত রজতজয়ন্তী উৎসব ও প্রতিষ্ঠানের বার্ষিক সাধারণ সভায় সাংবাদিকদের উদ্দেশ্যে এসব কথা বলেন তিনি।
পরিকল্পনা মন্ত্রী বলেন, স্বাধীনতার পরে আমাদের সংবিধানে ঘোষণা ছিল বাংলাদেশ পরিকল্পনা অনুসারে এগিয়ে যাবে। কিন্তু সামরিক শাসকরা বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পরে উন্নয়নের পরিকল্পনা থেকে সরে যায়। এরপর ২০০৯ সালে আবার আওয়ামীলীগ ক্ষমতায় আসে এবং আমরা প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে পরিকল্পনা অনুসারে এগিয়ে যাচ্ছি। ২০৪১ সালে আমরা উন্নত দেশে পরিণত হব।

ঢাকাস্থ উত্তরা সিলেট সমিতির সভাপতি মোহাম্মদ শামস উল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পরিকল্পনা অধ্যাপক প্রতিমন্ত্রী ড. শামসুল আলম।

পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী বলেন, পরিকল্পনা অনুযায়ী বাংলাদেশকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার ব্যত্যয় ঘটেছিল। ক্ষমতায় আসার পর প্রধামন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রথম রূপকল্প দেন ২০১০-২০২১। যে রূপকল্পে বলা হয়েছে, আমরা মধ্যম আয়ের দেশ হব। তাতে বলা হয়েছে আমাদের মাথাপিছু আয় ২ হাজার ডলার হবে। সে অনুসারে আমাদের মাথা পিছু আয় ২০৫৪ ডলারে দাাঁড়িয়েছে। এত দ্রুত আমাদের অগ্রগতির কারণ হচ্ছে বাংলাদেশ পরিকল্পনা অনুসারে এগিয়ে যাচ্ছে।

প্রতিমন্ত্রী আরো বলেন, আমরা ২০৪১ সালে উন্নত দেশ হব, সেই পরিকল্পনাও করা আছে। সে অনুসারে ২০৩১ সালের মধ্যে বাংলাদেশ হত দারিদ্রমুক্ত দেশ হবে। একই সময়ের মধ্যে আমরা উচ্চ মধ্যম আয়ের দেশ হব। দেশ শেখ হাসিনার হাতে থাকলে দ্রুত এগিয়ে যাবে এবং আমাদের লক্ষ্য অর্জিত হবে। ২০৪১ সালে আমাদের মাথাপিছু আয় হবে সাড়ে ১৬ হাজার মার্কিন ডলার।
এসময় চাঁদপুর জেলা প্রশাসক অঞ্জনা খান মজলিস ও চাঁদপুর জেলা পুলিশ সুপার মোঃ মিলন মাহমুদ বিপিএম মন্ত্রীদেরকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান।

এসময় অনুমিত হিসাব সম্পর্কীয় সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি উপাধক্ষ ড.মোঃ আব্দুস শহীদ এমপি,শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সচিব এহছানে এলাহী,সিলেট-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্যইয়াহইয়া চৌধুরী, ঢাকা জালালবাদ এসোসিয়েশন এর সহ-সভাপতি মোঃ জালাল আহম্মেদ, মহাপরিচালক বিটাক এর অতিরিক্ত সচিব আনোয়ার হোসেন, সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি মতলব সার্কেল) ইয়াছির আরাফাত,মতলব উত্তর উপজেলা নির্বাহী অফিসার গাজী শরিফুল হাসান,মতলব উত্তর থানার ওসি মুহাম্মদ শাহজাহান কামালসহ স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

স্টাফ করেসপন্ডেট

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *