ফরিদগঞ্জে গৃহবধূর আত্মহত্যা

চাঁদপুরের ফরিদগঞ্জে ঋণের বোঝা পরিশোধ করতে না পেরে গলায় ফাঁস দিয়ে মমতাজ বেগম (৪৮) নামে এক গৃহবধূ আত্মহত্যা করেছেন।

আত্মহত্যার সংবাদ পেয়ে ঈদের দিন সকালে ফরিদগঞ্জ থানার এসআই আব্দুল মান্নাম সঙ্গীয় ফোর্সসহ ঘটনাস্থল থেকে মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্ঘে প্রেরণ করা হয়েছে।

গত রোববার (১০ জুলাই) রাতে উপজেলার গোবিন্দপুর দক্ষিণ ইউনিয়নে উত্তর হাঁসা এলাকার মিজি বাড়িতে নিজ ঘরের আড়ার সথে ওড়না দিয়ে আত্মহত্যা করেন।

আত্মহত্যা কারী মমতাজ বেগম ওই এলাকার আবুল কালাম আজাদের স্ত্রী। তিনি ২সন্তানের জননী। তার স্বামী আবুল কালাম আজাদ ঢাকায় একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে চাকুরী করেন। তিনি এই ঘটনার সময় ঢাকায় ছিলেন।

পরিবারের লোকজন ও স্থানীয়রা জানান, মমতাজ বেগম প্রায় ১৫ লক্ষ টাকা ঋণগ্রস্থ চিলেন। পাওনাদারের টাকা পরিশধের চাপ সহ্য করতে না পেরে এই আত্মহত্যা করেছে।

মমতাজের ছোট ছেলে ফরহাদ জানান, আমি ঢাকা থেকে লঞ্চে করে বাড়ি আসছিলাম এ সময় মা আমার মোবাইলে ফোন দিয়ে বলে আমি কখন বাড়ি আসবো আমাকে দেখতে খুব ইচ্ছে করে বলে জানান। আমি মাকে বালি আমি আসতে সকাল হবে মা তুমি ঘুমাও এই বলে আমি ফোন কেটি দেই। এরপর ভোর ৪টা নাগাদ বাড়ি এস মাকে ডাকা-ডাকি করলে কোন শব্দ না পেয়ে দরজায় ধাক্কা দিলে দরজা খুলে গেলে দেখি মা ঘরের আড়াঁর সাথে ওড়না পেচিয়ে আত্মহত্যা করেছে। আমার চিৎকার চেচামেচিতে বাড়ির লোকজন এসে মায়ে মৃত দেহ মাটিতে নামায়।

ফরিদগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ শহীদ হোসেন জানান, ঈদের দিন মমতাজ বেগম নামে এক গৃহবধূ আত্মহত্যার সংবাদ পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্ঘে প্রেরন করেেছে। এ বিষয়ে একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করা হয়েছে।

স্টাফ করেসপন্ডেট, ১২ জুলাই ২০২২

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *