ফেসবুকে নগ্ন ছবি আপলোডের বিষয়ে কিছুই জানতেন না রণবীর

একগুচ্ছ ছবি, তারপর হইহই পড়ে গিয়েছিল নেট দুনিয়ায়। বলিউড সুপারস্টার রণবীর সিংয়ের নগ্ন ফটোশুট রীতিমতো আলোড়ন তুলেছিল বিনোদন জগতে। বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন, নারীবাদী সংগঠনসহ অনেকেই অভিযোগের আঙুল তুলেছিল তাঁর দিকে। নগ্ন ফটোশুট করানোর অভিযোগে রণবীর সিংয়ের বিরুদ্ধে একাধিক মামলা হয়েছিল। এমনকি রণবীরের খোঁজে পুলিশ তাঁর বাসায় হানা পর্যন্ত দিয়েছিল। তবু দেখা মেলেনি এই বলিউড তারকার। এ কারণে পুলিশি জেরার মুখোমুখি হতে হয়েছে তাঁকে।
গতকাল সোমবার চেম্বুর পুলিশ স্টেশনে সাতসকালেই হাজির ছিলেন রণবীর। সকাল সাতটা নাগাদ তদন্তকারী পুলিশ কর্মকর্তাদের মুখোমুখি হয়েছিলেন রণবীর। আড়াই ঘণ্টার মতো তাঁকে জেরা করা হয়েছিল। সাড়ে নয়টা নাগাদ রণবীরকে চেম্বুর পুলিশ স্টেশন থেকে বের হতে দেখা গিয়েছিল।

রণবীরের যে নগ্ন ফটোশুট নিয়ে এত ‘বিতর্ক’, আর এসব ঘিরে এই তারকার বক্তব্য অবাক করেছে পুলিশকে।

ফেসবুকে নগ্ন ছবি আপলোডের বিষয়ে কিছুই জানতেন না রণবীর

শীর্ষস্থানীয় এক পত্রিকার খবর অনুযায়ী, রণবীর পুলিশকে জানিয়েছেন, তিনি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে তাঁর নগ্ন ফটোশুটের ছবি আপলোড করেননি। এ ব্যাপারে তিনি কিছু জানতেন না বলে তদন্তকারী পুলিশ কর্মকর্তাদের জানিয়েছেন। এমনকি এই অভিযুক্ত তারকা বলেছেন, তাঁর ধারণা ছিল না যে এ ফটোশুটের কারণে তাঁকে এত বেশি ঝামেলা পোহাতে হবে।

মুম্বাই পুলিশ গত সপ্তাহতে রণবীরকে সমন পাঠিয়েছিল। কিন্তু তিনি তখন পুলিশ স্টেশনে হাজির থাকতে পারেননি। পেশাগত কাজে শহরের বাইরে আছেন বলে জানিয়েছিলেন তারকা। আর রণবীর তখন দুই সপ্তাহের মতো সময় চেয়েছিলেন। তবে তার আগেই তিনি থানায় হাজিরা দিলেন।

গত মাসে এক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন আর মুম্বাইয়ের এক নারী আইনজীবী রণবীরের নগ্ন ফটোশুটের বিরুদ্ধে অভিযোগ এনে চেম্বুর পুলিশ স্টেশনে আলাদা আলাদা মামলা করেছেন। তাঁদের অভিযোগ, রণবীর অশ্লীল বিষয়বস্তু বিক্রি করেছেন আর নারীদের অপমান করেছেন। এই এফআইআরের ভিত্তিতে মুম্বাই পুলিশ রণবীরকে ২২ আগস্ট তাদের সামনে হাজির হওয়ার জন্য সমন পাঠিয়েছিল।

Leave a Reply

Your email address will not be published.