বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশনের কোন বিকল্প নেই: ড. মহীউদ্দীন খান আলমগীর এমপি

কচুয়া প্রতিনিধি সাবেক স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী ড. মহীউদ্দীন খান আলমগীর এমপি বলেছেন, সমাজের মানুষকে রাষ্ট্রের কল্যাণে কাজ করার জন্য সচেতন করে তুলতে সংবাদ পত্র গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে আসছে। এ লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছে সাপ্তাহিক কচুয়া বার্তা। পত্রিকাটি প্রকাশে সম্পাদক যোগ্যতার পরিচয় দিয়ে আসছে। আমি আশা করি পত্রিকাটি সাংবাদিকতার মহান পেশাকে অক্ষুন্ন রেখে সমাজ পরিবর্তনে ভূমিকা রাখবে। মনে রাখতে হবে, সাংবাদিক, পত্রিকার গ্রহণযোগ্যতা ও সুনাম-সুখ্যাতি সৃষ্টি করতে বস্তু-নিষ্ঠ্য সংবাদ পরিবেশনের বিকল্প নেই। তাই পত্রিকার সম্পাদকসহ সকল কলাকৌশলীদের প্রতি আহবান জানাবো, সঠিক তথ্য ও উপাত্ত সংগ্রহ করে সংবাদ পরিবেশন করার। আমি কচুয়া বার্তার অগ্রযাত্রা কামনা করছি। তিনি গতকাল বুধবার কচুয়া উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে সাপ্তাহিক কচুয়া বার্তার ১৪তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষ্যে আয়োজিত বীর মুক্তিযোদ্ধা ও গুণীজনদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথা গুলো বলেন।
পত্রিকার প্রধান পৃৃষ্ঠপোষক শাহজাহান তালুকদারের সভাপতিত্বে ও সম্পাদক আলমগীর তালুকদারের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত এ সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে ড. মহীউদ্দীন খান আলমগীর স্বাধীনতা সংগ্রামে বীর মুক্তিযোদ্ধাসহ স্বাধীনতাকামী মানুষের আত্মত্যাগের স্মৃতিচারণ করে বলেন, যারা দেশের জন্য আত্মত্যাগ করেছেন তাদেরেকে যুগ যুগ ধরে শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করতে হবে। তাদের স্বপ্ন ও প্রত্যাশা পূরণে আমাদেরকে কাজ করতে হবে। যারা বাংলাদেশের আদর্শ ও উদ্দেশ্য বাস্তবায়ন না করে বিদেশিদের আদর্শ-উদ্দেশ্য বাস্তবায়নে লিপ্ত তারা এ দেশে থাকার অধিকার রাখেনা।
অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন- উপজেলা চেয়ারম্যান শাহজাহান শিশির ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোতাছেম বিল্যাহ, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান সুলতানা খানম, কচুয়া থানার ওসি মো. মহিউদ্দিন।
এছাড়া বক্তব্য রাখেন-সংবর্ধিত অতিথি বীর মুক্তিযোদ্ধা জাবের মিয়া ও ইঞ্জিনিয়ার একেএম আব্দুল মোতালেব, সাংবাদিক আবুল হোসেন, শ্রেষ্ঠ অধ্যক্ষ মিজানুর রহমান, শ্রেষ্ঠ শিক্ষক শহীদ উল্লাহ পাটওয়ারী ও মোতাহের হোসেন, কচুয়া প্রেসক্লাবের সভাপতি মানিক ভৌমিক, ইউপি চেয়ারম্যান কবির হোসেন, কচুয়া বার্তার বার্তা সম্পাদক মোহাম্মদ মহিউদ্দিন ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক আমির হোসেন।
উল্লেখ্য যে, সংবর্ধিত গুনীজনদের মধ্যে ছিল শিক্ষক, সাংবাদিক ও সমাজ সেবক। সংবর্ধনা ও আলোচনা শেষে অতিথিবৃন্দ পত্রিকার প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর কেকে কাঁটেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন- বীর মুক্তিযোদ্ধা আনোয়ার হোসেন শিকদার, সনতোষ চন্দ্র সেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রান ও দুর্যোগ বিষয়ক সম্পাদক তৌহিদুল ইসলাম খোকা, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি আকতার হোসেন সোহেল ভূইয়াসহ এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।
সভায় মতলব উত্তর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (এইউনএ) গাজী শরীফ, জনপ্রতিনিধি, জেলে নেতা ও বিভিন্ন পর্যায়ের ব্যাক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।
সভা শুরু হওয়ার পূর্বে মেঘনা নদীর অভয়াশ্রম এলাকার ষাটনল থেকে একটি নৌ র‌্যালী বের করা হয়। এ সময় মাইকিং করে মেঘনা উপকূলীয় এলাকার জেলে ও সাধারণ মানুষকে জাটকা রক্ষায় এগিয়ে আসার আহবান এবং জেলেদেরকে জাটকা ধরা থেকে বিরত থাকার জোরালো আহবান জানানো হয়।
জাটকা রক্ষায় ১ মার্চ থেকে ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত দুই মাস চাঁদপুরের মতলব উত্তর ষাটনল থেকে হাইমচর উপজেলার চরভৈরবী পর্যন্ত পদ্মা ও মেঘনা নদীর ৭০ কিলোমিটার অভয়াশ্রম এলাকায় ইলিশসহ সব ধরণের মাছ আহরণ নিষিদ্ধ। আইন অমান্যকারীদের বিরুদ্ধে ১ থেকে দুই বছরের সর্বোচ্চ কারাদন্ড, ৫ হাজার টাকা জরিমানা অথবা উভয় দন্ডের বিধান রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.