বিদেশের শতাধিক প্রেক্ষাগৃহে বাংলাদেশের সিনেমা

জাতীয় চলচ্চিত্র দিবসে বাংলাদেশি চলচ্চিত্রের জন্য সুখবর দিয়েছে বাংলাদেশি চলচ্চিত্রের আন্তর্জাতিক পরিবেশক প্রতিষ্ঠান স্বপ্ন স্কেয়ারক্রো। প্রতিষ্ঠানটির সভাপতি মোহাম্মদ অলিউল্লাহ সজীব জানান, ‘পাপ পুণ্য’ ছবিটি যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডার ১০৫টি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি দিচ্ছেন। এরই মধ্যে সেখানকার প্রেক্ষাগৃহসংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের সঙ্গে আলোচনা করে সবকিছু চূড়ান্ত করেছেন। বাংলাদেশের কোনো চলচ্চিত্র এর আগে এতগুলো প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পায়নি বলেও জানান তিনি। দেশের চলচ্চিত্রকে দেশের বাইরের এতগুলো প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি দিতে পেরে ভীষণ আনন্দিত অলিউল্লাহ সজীব।

গিয়াসউদ্দিন সেলিম পরিচালিত ও ইমপ্রেস টেলিফিল্ম প্রযোজিত ‘পাপ পুণ্য’ ছবির মাধ্যমে প্রথমবারের মতো বাংলাদেশের কোনো সিনেমা একযোগে দেশের বাইরের শতাধিক প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেতে যাচ্ছে। ঈদুল ফিতরের পর ২০ মে বাংলাদেশ ও উত্তর আমেরিকার এক শতাধিক মাল্টিপ্লেক্সে এই সিনেমা মুক্তি পাচ্ছে। এর আগে দেশের বাইরের ১৬টি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেয়েছিল মাসুদ হাসান উজ্জ্বল পরিচালিত ‘ঊনপঞ্চাশ বাতাস’।

 বিদেশের-শতাধিক-প্রেক্ষাগৃহে-বাংলাদেশের-সিনেমা

প্রথম আলোকে অলিউল্লাহ বলেন, ‘এটাই সেই স্বপ্ন যা এত দিন অবিশ্বাস্য ছিল, অবশেষে বাস্তব হতে যাচ্ছে। আমাদের পরিবেশনায় বাংলাদেশের ১৬ নম্বর সিনেমা একযোগে এক শতাধিক প্রেক্ষাগৃহে মুক্তির মাইলফলক স্পর্শ করতে যাচ্ছে। এ বছরের শুরুতে আমরা ঘোষণা দিয়েছিলাম, ২০২২ সালে আমাদের মুক্তি দেওয়া প্রতিটি সিনেমা আমেরিকা ও কানাডার এক শতাধিক হলে একসঙ্গে মুক্তি পাবে। অবশেষে “পাপ পুণ্য” মুক্তির মাধ্যমে সেটি শুরু হচ্ছে। এখন থেকে যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডায় বাস করা বাঙালিরা এএমসি, রিগ্যাল, সিনেমার্ক বা সিনেপ্লেক্সে গিয়ে বাংলাদেশের সিনেমা উপভোগ করতে পারবেন। এটা শুধু আমাদের জন্য নয়, যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডার বাংলাদেশি তথা সব বাংলাদেশির জন্য দারুণ গৌরবের।’ অলিউল্লাহ আগাম এ–ও জানিয়ে রাখেন, শাকিব খান ফিল্মসের নতুন চলচ্চিত্র ‘রাজকুমার’–এর আন্তর্জাতিক পরিবেশনার দায়িত্বে থাকছে তাঁদের প্রতিষ্ঠান স্বপ্ন স্কেয়ারক্রো। ‘রাজকুমার’ নিয়ে তাঁরা আরও বড় পরিসরে পরিকল্পনা করছেন।

সম্প্রতি ‘পাপ পুণ্য’ চলচ্চিত্রের উত্তর আমেরিকা পরিবেশনা নিয়ে ইমপ্রেস টেলিফিল্মের পক্ষে চুক্তি স্বাক্ষর করেন প্রতিষ্ঠানটির বিক্রয় ও বিপণন বিভাগের পরিচালক ইবনে হাসান খান এবং স্বপ্ন স্কেয়ারক্রো বাংলাদেশের প্রধান নির্বাহী সৈকত সালাহউদ্দিন। ইমপ্রেস টেলিফিল্মের ফিল্ম কনসালটেন্ট ও এই সিনেমার ক্রিয়েটিভ প্রডিউসার আবু শাহেদ বলেন, ‘ইমপ্রেস টেলিফিল্মের সিনেমা দিয়ে বাংলাদেশের সিনেমা ১০০ আন্তর্জাতিক থিয়েটারে মুক্তির মাইলফলক ছুঁতে যাচ্ছে বলে আমরা গর্বিত ও আনন্দিত। এর মাধ্যমে বাংলাদেশের সিনেমা ইন্ডাস্ট্রি পৃথিবীর একটি বৃহৎ ইন্ডাস্ট্রি হওয়ার পথে এগিয়ে যাবে বলে আমরা বিশ্বাস করি।’

‘মনপুরা’ চলচ্চিত্রের সফলতার পর আবারও গিয়াসউদ্দিন সেলিমের পরিচালনায় ‘পাপ পুণ্য’ চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন চঞ্চল চৌধুরী। এতে আরও অভিনয় করেছেন আফসানা মিমি, ফারজানা চুমকী, সিয়াম আহমেদ, শাহনাজ সুমি প্রমুখ। এরই মধ্যে এই চলচ্চিত্রের অভিনয়শিল্পীদের ফার্স্ট লুক পোস্টার প্রকাশিত হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.