হাজীগঞ্জে স্বেচ্ছায় রাস্তার পাশে এক হাজার তাল বীজ রোপন

হাজীগঞ্জের গন্ধর্ব্যপুর উত্তর ইউনিয়নে নতুন রাস্তা পেয়ে খুঁশি স্থানীয়রা। এতে করে হাজীগঞ্জ-শাহরাস্তি দুই উপজেলার মানুষের যোগাযোগের ব্যবস্থা আরো উন্নত হয়েছে। কিন্তু অতিবৃষ্টির কারনে রাস্তার দুই পাশ ভেঙ্গে পড়ার আশংকা দেখা দিয়েছে। ভবিষ্যৎতে যেন রাস্তা টেকসই হয় সেই চিন্তা মাথায় রেখে রাস্তার দুই পাশে স্থানীয় ইউপি সদস্য ফিরোজ আহমেদ হীরা নিজ অর্থায়নে কয়েকজন যুবক নিয়ে এক হাজার তালের বীজ রোপন করেন। তার এ উদ্যোগ দেখে রাস্তার পাশের জমির মালিকরা এখন গাছের চারা রোপনে আগ্রহ প্রকাশ করতে দেখা যায়।

২০১৯-২০ অর্থবছরে হাজীগঞ্জ উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিসের কর্মসৃজন প্রকল্পে নতুন এ রাস্তার মাটি কাটা সম্পন্ন হয়। উপজেলার গন্ধর্ব্যপুর গ্রাম থেকে শাহরাস্তি উপজেলার শোরশাক গ্রাম পর্যন্ত প্রায় আড়াই হাজার ফিট নতুন এ রাস্তার দুই পাশ জুড়ে ফসলী মাঠ।

সরেজমিনে দেখা যায়, নতুন রাস্তার দুই পাশের মাঠ জুড়ে বর্ষার পানি ঢেউ খেলছে । রাস্তার পাশে নেই তেমন কোন জনবসতি। দূর থেকে গ্রামের গাছপালা দেখা গেলেও নতুন এ রাস্তায় নেই কোন বৃক্ষের ছোঁয়া।

তবে এ রাস্তাটি দিয়ে খুব সহজে কৃষক ফসল ঘরে তুলতে পারবে। তাছাড়া দুই উপজেলার সাধারন মানুষ চলাচলের পথ আরো সুগম হয়েছে।
গন্ধর্ব্যপুর উত্তর ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান স্থানীয় ইউপি সদস্য ফিরোজ আহমেদ হীরার নেতৃত্বে আব্দুল মান্নান, রফিকুল ইসলাম, কাউচারসহ ৫/৬ জন লোক তালের বীজ রোপন করতে দেখা যায়। প্রতি ৭/৮ ফুট দূরত্বে এক একটি তালের বীজ দুই পাশ জুড়ে প্রায় এক হাজার ছাড়িয়েছে।
তার দেখায় দেখায় রাস্তার দুই পাশের জমির মালিক সফিক ও রহমতউল্ল্যাহ নারকেল, কলা, সুপারীসহ দেশী প্রজাতির গাছ লাগাতে দেখা যায়।
ইউপি সদস্য ফিরোজ আহমেদ হীরা বলেন, মেজর অব. রফিকুল ইসলাম বীর উত্তম এমপির একান্ত প্রচেষ্টায় নতুন এ রাস্তাটি সৃষ্টি হয়েছে। এতে করে দুই উপজেলার মানুষ সহজে চলাচল করতে পারবে। নতুন এ রাস্তা ভবিষ্যৎতে আরো সুন্দর পরিবেশ সৃষ্টি হবে এ বিশ্বাসে নিজ উদ্যোগে এক হাজার তালের বীজ লাগিয়েছি।

হাজীগঞ্জ প্রতিনিধি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *