মতলবে মাইক্রো-সিএনজি মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ৪

চাঁদপুরের মতলব বাবুরহাট পেন্নাই সড়কের বরদিয়া আড়ং বাজার এলাকায় বৃহস্পতিবার বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে মাইক্রো-সিএনজির অটোরিকশা মুখোমুখি সংঘর্ষে নারী-পুরুষসহ ৪ জন নিহত হয়েছে।

নিহতরা হচ্ছে: মতলব উত্তর উপজেলার ঘনিয়ারপাড় গ্রামের জালাল উদ্দিন মোল্লার ছেলে জসিম উদ্দিন (৫০)। অপর নিহতরা হলো-চাঁদপুর শহরের পুরান বাজার লাকার হারুন বেপারীর ছেলে হানিফ বেপারী(২৮), চাঁদপুর শহরের নতুন বাজার এলাকার আজিম জামানের মেয়ে নুপুর (১৪) ও ৭০ বছর বয়সী অজ্ঞাতনামা মহিলা।

এদিকে নিহত হানিফ বেপারীর স্ত্রী জান্নাত আক্তার পপি আশঙ্কাজনক অবস্থায় (২৫) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সূত্রে জানায়, চাঁদপুর থেকে ৫ জন যাত্রী নিয়ে একটি সিএনজি (ঢাকা-থ-১১-২৭৯৬) মতলবের উদ্দেশ্য রওয়ানা হলে বরদিয়া আড়ং বাজার এলাকায় আসলে বিপরীত দিক থেকে দ্রুতগতিতে আসা একটি মাইক্রো (ঢাকা মেট্রো-চ-১৯-৮০১২)সাথে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়।

সংঘর্ষে সিএনজিটি ধুমড়ে-মুচড়ে যায় এবং জসিম উদ্দিন ঘটনাস্থলেই মারা যায়। এছাড়া সিএনজিতে থাকা অপর যাত্রীদেরকে রক্তাক্ত অবস্থায় চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পর সেখানে আরো ৩ জন মারা যায়।

এদিকে বিক্ষুব্ধ জনতা প্রায় ঘন্টাখানেক সড়কে যান চলাচল বন্ধ করে রাখে। সংবাদ পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল গিয়ে উত্তপ্ত জনতাকে শান্ত করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

মতলব দক্ষিণ থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ মহিউদ্দিন মিয়া জানান, ঘটনাস্থল থেকে জসিম উদ্দিন মোল্লার লাশ উদ্ধার এবং ধুমড়ে মুচড়ে যাওয়া মাইক্রো ও সিএনজিটি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসা হয়।অপর তিনজনের লাশ চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.