মতলব উত্তরে হাতি’র চাঁদা আদায়ে ব্যবসায়ীরা অতিষ্ঠ

মতলব উত্তর প্রতিনিধি চাঁদপুরের মতলব উত্তরের বিভিন্ন হাটবাজারে এক সপ্তাহ ধরে হাতি দিয়ে চাঁদা আদায় করা হচ্ছে। সাত দিন ধরে উপজেলার বিভিন্ন হাটবাজারে চাঁদা তুলছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এতে অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছেন ব্যবসায়ী ও পথচারীরা।

শুক্রবার সকালে উপজেলার ছেংগারচর বাজারে প্রতি দোকানে দোকানে হাতিকে চাঁদা তুলতে দেখা যায়। ছেংগারচর বাজারের ব্যবসায়ী নাইম মিয়াজী বলেন, হাতির জ্বালায় আমরা অতিষ্ঠ। চাঁদা না দিলে নানাভাবে আমাদের বিরক্ত করছে। তাই ভয়ে চাঁদা দিচ্ছি। ওই বাজারের চা দোকানদার ইয়াছিন হোসেন বলেন, সকালে কেবল দোকান খুলে বসছি। ঠিক তখনই হাতি এসে দোকানের সামনে হাজির। টাকা নেই বলার পরও হাতি যাচ্ছে না। তাই বাধ্য হয়ে চাঁদা দিয়েছি।

এর আগে ৩রা মার্চ বৃহস্পতিবার ইসলামিয়া মার্কেট (নতুন) বাজারেরও হাতি দিয়ে চাঁদা আদায় করছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। চাল ব্যবসায়ী আজমত হোসেন বলেন, শনিবার সকালে আমি দোকান খুলি এক টাকাও বিক্রি করি নাই। কিন্তু হাতি আসি হাজির। চাঁদার জন্য ভয় দেখাওছে। জীবনের ভয়ে বাধ্য হয়া অন্য জনের কাছ থেকে ধার নিয়া ৫০ টাকা দিছি।

হাতির মালিক শাকিল হোসেন বলেন, আমরা হাতি দিয়ে জীবিকা নির্বাহ করাই আমাদের কাজ। আমরা সারা দেশে হাতি নিয়ে বাজার বাজার ঘুরে বেড়াই। দোকান মালিকরা আমাদের হাতি দেখে খুশি হয়ে যে টাকা দেয় তা দিয়ে হাতির ভরণ পোষণ করি ও আমাদের সংসার চালাই।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে মতলব উত্তর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহাম্মদ শাহাজাহান কামাল বলেন, হাতি দিয়ে চাঁদা আদায়ের কোনো সুযোগ নেই। এ রকম ঘটনা আমাকে কেউ জানায়নি। এখন জানলাম, খোঁজ নিয়ে ব্যবস্থা নেব।

Leave a Reply

Your email address will not be published.