ঘাটে ভেড়ে না লঞ্চ, ভোগান্তিতে সাধারণ মানুষ

ভোলার তজুমদ্দিন উপজেলার শশীগঞ্জ সুইজ ঘাটে তিন বছরের বেশি সময় ধরে ভিড়ছে না কোনো লঞ্চ। এতে ওই উপজেলার প্রায় লক্ষাধিক মানুষকে পার্শ্ববর্তী উপজেলা লালমোহন ও বোরহানউদ্দিন গিয়ে লঞ্চে উঠে রাজধানী ঢাকাসহ বিভিন্ন গন্তব্যে যেতে হচ্ছে। ফলে প্রতিনিয়ত যাত্রী ও ব্যবসায়ীসহ এলাকার মানুষকে সীমাহীন কষ্ট উপেক্ষা করে গন্তব্যে যেতে হয়।

জানা গেছে, তজুমদ্দিন উপজেলা সব ব্যবসায়ীদের মালামাল আনা নেওয়া এবং উপজেলাবাসীকে ঢাকা যাতায়াতের সবচেয়ে সহজ মাধ্যম হচ্ছে শশীগঞ্জ ঘাট। তবে এই ঘাটে তিন বছর আগে লঞ্চ ভিড়লেও এখন পল্টুন ও সংযোগ সড়ক নির্মাণ হলেও আসে না কোনো লঞ্চ । এতে একদিকে যেমন অতিরিক্ত সময় ব্যয় হচ্ছে অন্যদিকে ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে যাত্রীদের।

 

স্থানীয় বাসিন্দা মো. খোকন মাহাজন ও মৎস্য আড়ৎদার মো. হাসেম মাহাজন বলেন, আগে লঞ্চ ভিড়তো তখন আমাদের কোনো সমস্যা হয়নি। কিন্তু গত কয়েক বছর ধরে এই ঘাটে লঞ্চ ভিড়ছে না। ফলে সবচেয়ে বেশি ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছেন ব্যবসায়ীরা।

শশীগঞ্জ সুইচ ঘাট ইজারাদার মো. সবুজ তালুকদার বলেন, ‘লঞ্চ ঘাটের বিষয়ে স্থানীয় সংসদ সদস্যের সঙ্গে কথা হয়েছে। খুব শিগগিরই এখানে লঞ্চ ভিড়তে শুরু করবে।’

বিআইডব্লিটি এর সহকারী পরিচালক মো. সহিদুল ইসলাম বলেন, ‘এ ঘাটটির ব্যাপারে আমরা অবহিত আছি। এখানে নাব্যতা সংকট রয়েছে। ড্রেজিং করানো জরুরী, শিগগিরই লঞ্চ ঘাট করার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

Leave a Reply

Your email address will not be published.