মেঘনায় নিষেধাজ্ঞা অমান্য করায় ৬২ জেলের কারাদন্ড

স্টাফ রিপোটার জাটকা রক্ষায় মার্চ এপ্রিল দু’মাসের অভিযান চলমান রয়েছে। এরইমধ্যে চাঁদপুরে অভয়াশ্রম এলাকায় গত ১ মাসের অভিযানে ৬৮ মামলায় ৬২ জন জেলেকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদন্ড দেওয়া হয়েছে। একই সময়ে ১৯ জন জেলেকে ৭৮ হাজার ৪ শত টাকা জরিমানা করেছে ভ্রাম্যমান আদালত।
চাঁদপুর মৎস্য বিভাগ জানিয়েছে, গত এক মাসে ২৪ টি নৌকা আটক, ৯৮.৩৪ লক্ষ মিটার কারেন্ট জাল ও ১২ হাজার ১ শত ৫০ কেজি জাটকা জব্দ করা হয়েছে। ৬ টি নৌকা নিলামে ২ লাখ ২৪ হাজার ৫ শত ৩৮ টাকায় বিক্রি করা হয়েছে।১ মার্চ থেকে ৯ এপ্রিল পর্যন্ত মোট ৮১ টি মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করা হয়।
খোঁজ নিয়ে জানাগেছে, চলমান অভিযান সফল করার লক্ষ্যে প্রশাসনিকভাবে সর্বাত্মক চেষ্টা করা হলেও স্থানীয় ইউপি সদস্য ও চেয়ারম্যানদের নীরব ভূমিকা ও কোন কোন জায়গায় নৌ-পুলিশের গাফিলতি দেখা যাচ্ছে। ফলে প্রাথমিক অভিযান অনেকটা সফল হলেও এপ্রিলের শুরু থেকে বিভিন্ন জায়গায় জেলেদেরকে জাটকা ধরতে দেখা যায়। বেশ কয়েকটি অভিযানে সড়ক থেকে বিপুল পরিমান জাটকা জব্দ হয়েছে। অভিযোগ রয়েছে নৌ-পুলিশের স্প্রীট বোর্ড চালক জেলেদের সোর্স হিসেবে কাজ করে।
চাঁদপুর সদর উপজেলা সিনিয়র মৎস কর্মকর্তা আতাউর রহমান জানান, আমরা অভিযান সফল করার জন্য সর্বাত্মক চেষ্টা করে যাচ্ছি। আমাদের লক্ষ্য হলো জেলেরা যাতে কোন অবস্থাতেই নদীতে নামতে না পারে।তারপরও আমাদের কিছু কিছু সমস্যা রয়েছে। সেগুলো মাথায় রেখে সামনে আমাদের বিশেষ অভিযান পরিচালনা করা হবে।
জেলা মৎস্য কর্মকর্তা গোলাম মেহেদী হাসান বলেন, এখনো পর্যন্ত আমাদের অভিযান অনেকটাই ভালো অবস্থানে । তবে কোথাও কোন সমস্যা হলে আমরা তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা নিব।

Leave a Reply

Your email address will not be published.