কচুয়ায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে চলছে ধোয়া মোছার কাজ

কোভিড-১৯ পরিস্থিতিতে প্রায় দেড় বছরেরও বেশি সময় ধরে বন্ধ থাকার পর আগামী ১২ সেপ্টেম্বর খুলছে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। এ নিয়ে কচুয়ায় শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের মনে ফিরে এসেছে প্রানচঞ্চলতা। পুরোদমে চলছে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতার কাজ।

উপজেলায় ১৭৩টি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ৪২ টি উচ্চ বিদ্যালয়, ৯টি কলেজ ও ৩৭টি মাদ্রাসাসহ মোট ২৬১টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান রয়েছে। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার বিষয়ে সব ধরনের প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে।

শিক্ষার্থীরা বলেন, অনেকদিন পরে আমাদের স্কুল খুলছে। আমরা অনেক খুশি। আমরা ক্লাস রুমে এসে ক্লাস করবো আমাদের খুব আনন্দ লাগছে। আমরা স্বাস্থ্যবিধি মেনে ক্লাস করবো।

উপজেলার বেশ কয়েকেটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে সরেজমিন দেখা গেছে, প্রতিষ্ঠানগুলো পরিস্কার পরিচ্ছন্ন করে রাখা হয়েছে। কিছু প্রতিষ্ঠানে পরিচ্ছন্নের কাজ চলছে। ক্লাসরুমের বেঞ্চগুলো ইতিমধ্যেই পরিষ্কার করা হয়েছে।

তুলপাই দারাশাহী উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক মো. গোলাম সাদেক বলেন, সরকারের নির্দেশনা মেনে স্কুল খোলার সব রকম প্রস্তুতি নেয়া হচ্ছে। আশা করছি নির্ধারিত সময়ের আগেই শিক্ষার্থীদের জন্য বিদ্যালয় প্রস্তুত থাকবে।

প্রধান শিক্ষক মো. জহিরুল ইসলাম বলেন, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার পর শিক্ষার্থীদের মাস্ক পরিধান, হ্যান্ড স্যানিটেইজার ব্যবহারসহ সরকারি সকল নির্দেশনা অনুযায়ী স্বাস্থ্যবিধি মেনে ক্লাস পরিচালনা করা হবে।

কচুয়া প্রতিনিধি

Leave a Reply

Your email address will not be published.