হাইমচরে শিক্ষামন্ত্রীর সহযোগিতা পেলেন অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিগ্রস্তরা

মোঃ শাহ আলম মিজী: হাইমচর উপজেলার ৬ নং চরভৈরবী ইউনিয়নের মাছ ঘাট সংলগ্ন গত ২৪ মার্চ ভোরে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে ৬৭ টি দোকান পুড়ে ভস্মীভূত হয়ে যায়।
এতে পরিবারগুলো আর্থিকভাবে চরম ক্ষতিগ্রস্ত হয়। ক্ষতিগ্রস্থ এই পরিবারগুলোর পাশে আর্থিক ও সহায়তা নিয়ে দাঁড়িয়েছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও শিক্ষামন্ত্রী আলহাজ্ব ডাঃ দীপু মনি এমপি
২৮ মার্চ সোমবার বিকাল ৪ টায় চরভৈরবী ইউনিয়নে অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিগ্রস্থ ৬৭টি দোকান ক্ষতিগ্রস্তের মাঝে আর্থিক সহায়তা প্রদান অনুষ্ঠানে চরভৈরবী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আহম্মেদ আলী মাস্টারের সভাপতিত্বে ও উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান চোকদার এর পরিচালনয়, প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন চাঁদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ডাঃ জে আর ওয়াদুদ টিপু, বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন হাইমচর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নূর হোসেন পাটওয়ারী, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা চাই থোয়াইহলা চৌধুরী, উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হুমায়ন কবির প্রধানীয়া, সহ-সভাপতি এম বাশার, প্রচার সম্পাদক মুনসুর পাটওয়ারী, জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক মাহফুজুল রহমান টুটুল। এসময় উপস্থিত ছিলেন ১ নং গাজীপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান গাজী, চরভৈরবী মাছ ঘাট বাজার কমিটির সভাপতি ইউসুফ জুবায়ের শিমুল চোকদার,সাধারণ সম্পাদক ইলিয়াস লিটন, উত্তর আলগী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ বাচ্চু মিয়া খান, ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম রনি, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ন আহব্বায়ক জহিরুল ইসলাম সোহেল পাটওয়ারী সহ আওয়ামী লীগের অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।
প্রধান অতিথি জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ডাঃ জে আর ওয়াদুদ টিপু তিনি ক্ষতিগ্রস্ত ব্যাবসায়ীদের শিক্ষা মন্ত্রীর নিজস্ব তহবিল থেকে আংশিক ক্ষতিগ্রস্ত ১৭ জনকে নগত অর্থ ৫ হাজার টাকা করে সহায়তা করেন এবং পরবর্তীতে আরও সহায়তার আশ্বস্ত করেন এবং তিনি বলেন ভবিষ্যতে আপনারা একটু সাবধানতা অবলম্বন করবে,যেন এই ধরনের দূর্ঘটা এরিয়ে চলতে পারেন।
এদিকে হাইমচর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা চাই থোয়াইহলা চৌধুরী তাৎক্ষণিক উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ত্রাণ ও দুর্যোগ অধিদপ্তরের সহযোগিতায় ক্ষতিগ্রস্থ ৪০ জন ব্যাবসায়ীদের ১ বান ঢেউটিন ও নগত ৩ হাজার টাকা প্রদান করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.